তিন দশকে ৯৫ হাজার কাশ্মীরিকে হত্যা করেছে ভারত

তিন দশকে ৯৫ হাজার ২৩৮ জন কাশ্মীরিকে হত্যা করেছে ভারতীয় বাহিনী। এ সময়ে সাত হাজার ১২০ জনকে কারাবন্দি রাখা হয়েছে।

কাশ্মীরি গ্লোবালের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে আসে। এ হিসাব ধরা হেয়েছে ১৯৮৯ সালের জানুয়ারি থেকে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কাশ্মীরের ১১ হাজার ১০৭ নারী ভারতীয় বাহিনীর নিগৃহের শিকার হয়েছেন। এক লাখ ৯ হাজার ১৯১টি আবাসিক ভবন ও স্থাপনা ধ্বংস করা হয়েছে।

এছাড়া ওই প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, এই সময়ে আট হাজার কাশ্মীরিকে কারা হেফাজতে নেয়ার পর এখন পর্যন্ত তাদের কোনো খোঁজ মেলেনি।

শুধু চলতি বছরেই ভারতীয় বাহিনী কাশ্মীরের পিএইচডি গবেষক, প্রকৌশল বিদ্যার শিক্ষার্থীসহ ৩৫০ জনকে হত্যা করেছে।

নিহতদের মধ্যে রয়েছেন- হুররিয়াত নেতা অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ রাফি ভাট, ড. মান্নান বসির ওয়ানি, ড. সবজার আহমাদ সোফি, ড. আবদুল আহাদ ঘানি, এমফিল গবেষক আদিমাদ ফয়েজ মালি, ২৪ বছর বয়সী প্রকৌশলী মোহাম্মদ ইশা ফাজালি, স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থী সাইয়েদ ওয়াশি সফি শাহ, আসিফ আহমেদ মালিক, মীর হাফিজুল্লাহ, তারিক আহমেদ ঘানি।

এ বছরেই শিশু, তরুণ, শিক্ষার্থী, নারী ও হুররিয়াত নেতাসহ দুই হাজার ৩৪৮ জনকে আটক করা হয়েছে।

ওই আরও উল্লেখ করা হয়, তালিকার বাইরেও বহু কাশ্মীরি ভারতের বিভিন্ন কারাগারে ধুঁকে ধুঁকে মরছেন। প্রতিবেদনে ২০১৬ সালের ৮ জুলাই স্বাধীনতাকামী তরুণ নেতা বুরহান ওয়ানিকে বিচারবহির্ভূত হত্যার কথাও উল্লেখ করা হয়।


পরবর্তী খবর পড়ুন : জামালপুরের ডিসির ভিডিওটি ছড়িয়ে ব্যক্তিগত গোপনীয়তার মাত্রা অতিক্রম করা হয়েছেঃ সুলতানা কামাল